• Page Views 191

বেগম খালেদা জিয়ার ১৩ দফা গাইডলাইন

আগামী জাতীয় নির্বাচন সামনে রেখে নির্বাচন কমিশনের (ইসি) সঙ্গে সংলাপে একটি অবাধ, সুষ্ঠু ও অংশগ্রহণমূলক নির্বাচনের জন্য দেশব্যাপী ‘লেভেল প্লেয়িং ফিল্ড’ তৈরিসহ বেশ কিছু প্রস্তাব দেবে বিএনপি। এ বিষয়ে দলীয় নেতৃবৃন্দকে ইতিমধ্যেই ১৩ দফা গাইডলাইন দিয়েছেন বিএনপি চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়া।

চিকিৎসার্থে লন্ডন যাওয়ার দুই দিন আগে ১৩ জুলাই গুলশানে নিজের রাজনৈতিক কার্যালয়ে স্থায়ী কমিটির বৈঠক শেষে সিনিয়র নেতাদের এ গাইডলাইন দিয়ে গেছেন তিনি। বিএনপির নীতিনির্ধারক একাধিক সূত্র এ তথ্য দিয়েছে। চেয়ারপারসনের দেওয়া নির্দেশনা অনুযায়ী ইসির সংলাপে বিএনপির প্রস্তাবগুলোর মধ্যে নির্বাচনের কমপক্ষে ছয় মাস আগে সব দলের জন্য লেভেল প্লেয়িং ফিল্ড তৈরি করতে হবে। এ ছাড়া থাকছে— নির্বাচনের সময় বেশ কয়েকটি গুরুত্বপূর্ণ মন্ত্রণালয়কে নির্বাচন কমিশনের চাহিদা অনুযায়ী কার্যকর ব্যবস্থা গ্রহণ করতে বাধ্য করার তাগিদ। নির্বাচনের সময়সূচি ঘোষণার প্রাক্কালে নির্বাচনের সঙ্গে সংশ্লিষ্ট কয়েকটি গুরুত্বপূর্ণ মন্ত্রণালয় যথা প্রতিরক্ষা, স্বরাষ্ট্র, অর্থ, তথ্য, জনপ্রশাসন, স্থানীয় সরকার, শিক্ষা, প্রাথমিক ও গণশিক্ষা, পররাষ্ট্র এবং স্বাস্থ্য ও পরিবারকল্যাণসহ বেশ কয়েকটি গুরুত্বপূর্ণ মন্ত্রণালয়কে সংবিধানের ১২৬ অনুচ্ছেদ ও গণপ্রতিনিধিত্ব আদেশ, ১৯৭২-এর ৫ অনুচ্ছেদ অনুসারে নির্বাচন কমিশনের চাহিদা অনুযায়ী কার্যকর ব্যবস্থা গ্রহণে বাধ্য করার কথাও বলবে দলটি। যা সাধারণ নির্বাচনের তফসিল ঘোষণার তারিখ থেকে নির্বাচিত নতুন সরকার দায়িত্ব না নেওয়া পর্যন্ত এ ব্যবস্থা বলবৎ রাখতে হবে। সূত্রগুলো জানায়, বিএনপির প্রস্তাবে আরও থাকবে— সংসদীয় আসন এলাকার সীমানা পুনর্বিন্যাস। নির্বাচনকালে প্রতিরক্ষা (সেনা) বাহিনী মোতায়েনের ব্যবস্থা। প্রতিরক্ষা বাহিনীকে ম্যাজিস্ট্রেরিয়াল ক্ষমতা প্রদান করে ভোট গ্রহণ দিবসের সাত দিন আগে থেকে নির্বাচনী ফলাফলের গেজেট প্রকাশনা পর্যন্ত সব নির্বাচনী এলাকায় টহলসহ ভোট কেন্দ্রে ও বিশেষ বিশেষ স্থানে সেনা মোতায়েনের ব্যবস্থা গ্রহণ করা। ভোটার তালিকা হালনাগাদকরণ ও নতুন ভোটার নিবন্ধীকরণ। বর্তমান রাজনৈতিক সংকট নিরসনে নির্বাচনকালীন দলনিরপেক্ষ সরকারের অধীন একটি স্বাধীন নির্বাচন কমিশনের পরিচালনা। সবার কাছে গ্রহণযোগ্য জাতীয় নির্বাচন অনুষ্ঠানের জন্য একটি স্থায়ী ব্যবস্থা প্রণয়ন। এ ছাড়া নির্বাচন কমিশনকে অধিকতর কার্যকর ও শক্তিশালীকরণ এবং জনপ্রতিনিধিত্বমূলক আইনসহ (আরপিও) অন্যান্য নির্বাচনী বিধিবিধান সময়োপযোগী ও যৌক্তিকীকরণের জন্য প্রয়োজনীয় সংস্কারের তাগিদ দেবে বিএনপি। নির্বাচন কমিশনকে মাঠপর্যায়ের কর্মকর্তা-কর্মচারীদের এবং সকল পর্যায়ের নির্বাচনী কর্মকর্তা অর্থাৎ রিটার্নিং অফিসার, সহকারী রিটার্নিং অফিসার, আপিল কর্তৃপক্ষ, প্রিসাইডিং অফিসার, সহকারী প্রিসাইডিং অফিসার, পোলিং অফিসার, আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী কর্মকর্তা, রেজিস্ট্রেশন অফিসার, সহকারী রেজিস্ট্রেশন অফিসার, রিভাইজিং অথরিটি, নির্বাচনকার্যে নিয়োজিত বিচার বিভাগীয় কর্মকর্তাদের নিরপেক্ষতা নিশ্চিত করার কথাও বলা হবে সংলাপে। এ ছাড়া নির্বাচনকালে নিরপেক্ষ ব্যক্তির দ্বারা সরকারপ্রধানের দায়িত্ব পালন হবে বিএনপির সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ বিষয়।

ইসির সঙ্গে আলোচনায় বিএনপির পক্ষ থেকে সম্ভাব্য প্রস্তাবের ভিতরে নির্বাচন কমিশন সচিবালয় ও মাঠপর্যায়ের কর্মকর্তাদের মধ্যে রাজনৈতিক দলের প্রতি প্রকাশ্য আনুগত্য পোষণকারী কর্মকর্তাদের চিহ্নিত করে অতিসত্বর প্রত্যাহার করে নেওয়াসহ প্রত্যাহারকৃত কর্মকর্তাদের যে কোনো ধরনের নির্বাচনী দায়িত্ব পালন থেকে বিরত রাখার কথা বলা হবে। প্রেষণে নির্বাচনী দায়িত্বে নিয়োজিত প্রকাশ্য রাজনৈতিক মতাবলম্বী নির্বাচন কর্মকর্তাদের চিহ্নিত করে নির্বাচনী দায়িত্ব পালন থেকে বাদ দেওয়া। নির্বাচনের তফসিল ঘোষণার সময় মাঠপর্যায়ে কর্মরত জেলা প্রশাসক ও পুলিশ সুপারদের প্রত্যাহার করে নতুন কর্মকর্তা পদায়নের ব্যবস্থা গ্রহণ করা। নতুন কর্মকর্তা পদায়নে বিগত পাঁচ বছর বিভিন্ন পদমর্যাদায় ওই জেলায় চাকরিরত ছিলেন এমন কর্মকর্তাদের একই জেলায় জেলা প্রশাসক ও পুলিশ সুপার পদে পদায়ন না করা। একইভাবে নির্বাচনের তফসিল ঘোষণার সময় প্রত্যেক উপজেলা এবং থানায় কর্মরত উপজেলা নির্বাহী অফিসার ও থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তাদের প্রত্যাহার করে নতুন কর্মকর্তা নিয়োগের ব্যবস্থা গ্রহণের কথাও বলবে বিএনপি।

তবে ইসির পাশাপাশি সরকারের সঙ্গে রাজনৈতিক দলের সংলাপে আগ্রহী বেশির ভাগ দলীয় নীতিনির্ধারক। তারা মনে করেন, ইসির সংলাপের আগে একাদশ জাতীয় নির্বাচন কার অধীনে কীভাবে হবে, তার ফয়সালার জন্য সরকারের উচিত দেশের রাজনৈতিক দলগুলোর সঙ্গে সংলাপের আয়োজন করা। অন্যথায় বিদ্যমান নির্বাচনী সংকট নিরসন কিছুতেই সম্ভব নয়। সংলাপের আগে বিএনপি চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়া লন্ডন থেকে দেশে ফিরে এলে দলের সর্বোচ্চ নীতিনির্ধারণী ফোরাম জাতীয় স্থায়ী কমিটির জরুরি বৈঠক ডেকে এ বিষয়ে আরেক দফা আলোচনা করে নেবেন। বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য ড. খন্দকার মোশাররফ হোসেন এ বিষয়ে বাংলাদেশ প্রতিদিনকে বলেন, বর্তমান ইসি এখন পর্যন্ত নিজেদের ওপর বিরোধী রাজনৈতিক দলগুলোর আস্থা তৈরি করাতে পারেনি। এর পরও দেশ, জাতি ও জনগণের স্বার্থে বিএনপি ইসির এই সংলাপে অংশ নেবে। কারণ বিএনপি গণতান্ত্রিক রাজনৈতিক দল বলেই সংলাপ তথা আলোচনার মাধ্যমে সমস্য সমাধানে বিশ্বাস করে।

দলের স্থায়ী কমিটির অন্য সদস্য ব্যারিস্টার মওদুদ আহমদের মতে, জাতি ও দেশের জনগণের স্বার্থে বিএনপি এই নির্বাচন কমিশনের সঙ্গে সংলাপে অংশ নেবে। তবে এই নির্বাচন কমিশন সত্যিকার অর্থে নিরপেক্ষ কমিশন নয়। প্রধানমন্ত্রীসহ মন্ত্রী-এমপিরা সরকারি টাকায় বিভিন্ন এলাকায় গিয়ে জনসভা করে নৌকায় ভোট চেয়ে বেড়াচ্ছেন। অথচ বিরোধী দলকে সভা-সমাবেশ দূরের কথা, ঘরোয়াভাবেও আলোচনা করতে বাধা দিচ্ছে পুলিশ। এসব নিয়ে বর্তমান ইসির কোনো মাথাব্যথা নেই। প্রসঙ্গত, ৩০ জুলাই সুশীলসমাজের প্রতিনিধিদের সঙ্গে বৈঠকের মাধ্যমে বিভিন্ন মহলের সঙ্গে সংলাপ শুরু করে ইসি। তারই ধারাবাহিকতায় ১৫ অক্টোবর বিএনপি ও ১৮ অক্টোবর আওয়ামী লীগের সঙ্গে সংলাপ করবে ইসি।

সূত্র:বিডি প্রতিদিন

Share

চাকরির প্রতিশ্রুতিতে ঢাকায় এনে তরুণীকে গণধর্ষণ!

Next Story »

এশিয়া সফরে আসছেন ট্রাম্প, তালিকায় নেই বাংলাদেশ

Leave a comment

LifeStyle

  • ডায়াবেটিস নিয়ন্ত্রণে কাঁচামরিচ!

    4 months ago

    রান্নাঘরের অন্যতম প্রয়োজনীয় একটি উপাদান হলো কাঁচামরিচ। রান্নায় বা সালাদে তো বটেই, কেউ কেউ ভাতের সঙ্গে আস্ত কাঁচামরিচ খেতেও পছন্দ করেন। কিন্তু আমরা অনেকেই জানি না যে ...

    Read More
  • নিম পাতার গুণাগুণ

    4 months ago

    নিমগাছের পাতা, তেল ও কাণ্ডসহ নানা অংশ চিকিৎসা কাজে ব্যবহৃত হয়ে আসছে। নানা রোগের উপশমের অদ্ভুত ক্ষমতা রয়েছে এ গাছের। এ লেখায় থাকছে তেমনই কিছু ব্যবহার। ম্যালেরিয়া ...

    Read More
  • ডায়েটের কিছু ভুল

    4 months ago

    আজকাল মোটা হওয়া যেন কারোই পছন্দ না। কিন্তু ডায়েট করেও কাঙ্ক্ষিত ফল পাচ্ছেন না অনেকেই। কারণ, ডায়েটের সময় আমরা এমন কিছু ভুল করি যেগুলোর জন্য মেদ কমাতো ...

    Read More
  • পুষ্টিগুণে ভরপুর আনারসের জুস

    4 months ago

    আনারস শুধু সুস্বাদের জন্যই নয়, স্বাস্থ্যের জন্যও উপকারী। রসালো এ ফল জুস তৈরি করেও খাওয়া যায়। সারাদিন রোজা রেখে সুস্থ থাকতে অসংখ্য পুষ্টিগুণে ভরপুর আনারসের জুস যেমন ...

    Read More
  • অ্যাসিডিটিতে এখন যেমন খাবার…

    4 months ago

    রোজার মাসে সবাই যেন খাবারের প্রতিযোগিতায় নেমে পড়ে। সারা দিন না খাওয়ার অভাবটুকু ইফতারে পুষিয়ে নেওয়ার জন্য কি এই প্রতিযোগিতা? কে কত খেতে বা রান্না করতে পারে। ...

    Read More
  • ইফতারে স্বাস্থ্যকর ফল পেয়ারা

    4 months ago

    প্রতিদিনের ইফতারে ভাজাপোড়া কম খেয়ে বিভিন্ন ফল খাওয়া উত্তম বলে মত দিয়েছেন বিশেষজ্ঞরা। তাই আপনার ইফতারে থাকতে পারে অতি পরিচিত এই ফলটি। প্রতিদিন মাত্র ১টি পেয়ারা আপনার ...

    Read More
  • রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়ায় লেবুর শরবত

    4 months ago

    গরমে যখন তীব্র দাবদাহে ক্লান্ত, ঠিক তখনই ইফতারে এক গ্লাস লেবুর শরবত হলে প্রাণটা জুরিয়ে যায়। শুধু শরবত হিসেবেই নয়, ওজন কমাতেও অনেকেই লেবুর শরবত খান। কিন্তু ...

    Read More
  • অ্যালার্জি ও সর্দি হয় যে কারণে

    4 months ago

    সাধারণত যারা বেশি পরিমাণে ঘরের বাইরে থাকেন তাদের মধ্যে সর্দি বা এলার্জির পরিমাণ বেশি লক্ষ্য করা যায়। তবে ঘরের ভেতরে অনেক বস্তু রয়েছে যেগুলো কারো মধ্যে এলার্জি ...

    Read More
  • প্রতিদিন কাঁচা পেঁয়াজ খেলে কি উপকার হয়?

    4 months ago

    ‘যত কাঁদবেন, তত হাসবেন’- পেঁয়াজের ক্ষেত্রে এই কথাটা দারুণভাবে কার্যকরী। কারণ এই সবজি কাটতে গিয়ে চোখ ফুলিয়ে কাঁদতে হয় ঠিকই। কিন্তু এই প্রাকৃতিক উপাদানটি শরীরেরও কম উপকার ...

    Read More
  • রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়ায় হলুদ

    4 months ago

    রান্নাে মশলা হিসেবে অতি পরিচিত হলুদ। ভিটামিন সি, ভিটামিন ই, ভিটামিন কে, ক্যালসিয়াম, কপার, আয়রনের পাশাপাশি এতে আছে প্রচুর পরিমাণ অ্যান্টি অক্সিডেণ্ট, অ্যান্টিভাইরাল, অ্যান্টিব্যাকটেরিয়াল, অ্যান্টিকারসিনোজেনিক, অ্যান্টি ইনফ্লামেটরি ...

    Read More
  • Read

    More